1. admin@godagarinews24.com : admin :
মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ১১:৪৪ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
মতিহার থানা পুলিশের মিথ্যা মামলা থেকে বাঁচতে ভুক্তভোগী পরিবারের সংবাদ সম্মেলন গোদাগাড়ীতে দুই শিশু চাচাতো ভাই বোন গোসল করতে যেয়ে পানিতে ডুবে মৃত্যু রাজশাহীর গোদাগাড়ী থেকে ০২ টি ওয়ান শুটার গান ও ১৪২ বোতল ফেন্সিডিলসহ অস্ত্র ব্যবসায়ী রাশিকুল ইসলামকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব-৫ গোদাগাড়ীতে রক্ষাগোলা আয়োজনে ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী জনগণের নিয়ে ভূমি সংক্রান্ত মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত রাজশাহীর গোদাগাড়ীতে এক গৃহবধূকে হত্যা করে পালিয়েছে স্বামী গোদাগাড়ীতে ভাসুরের বিরুদ্ধে ধর্ষণ চেষ্টা অভিযোগে মামলা নওগাঁয় আমিন সমিতির বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত রাজশাহীতে বিশ্ব মুক্ত গণমাধ্যম দিবস পালন মান্দায় ভুল অপারেশনে প্রসূতির মৃত্যুর অভিযোগ উপজেলা নির্বাচন কমছে সময় বেড়েছে দৌড়ঝাঁপ

নিয়ামতপুরে ক্ষমতার দাপটে বন্ধ গভীর নলকূপের ড্রেন ” পানি না পেয়ে হতাশ বোরো চাষিরা

  • আপডেট সময় : শুক্রবার, ১৯ জানুয়ারি, ২০২৪
  • ৯৭ বার পঠিত

এস এম রকিবুল হাসান
নিয়ামতপুর নওগাঁ প্রতিনিধি

নওগাঁর নিয়ামতপুরে ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে একটি (DDW) গভীর নলকূপের আন্ডার গ্রাউন্ড ড্রেনের গ্যাস লাইন বন্ধ করে দিয়েছে এলাকার প্রভাবশালী একটি কুচক্রী মহল। এতে করে পানি না পেয়ে বোরো ধান চাষ নিয়ে চরম হতাশায় পড়েছেন প্রায় শতাধিক কৃষক। নিয়ামতপুর উপজেলার সদর ইউনিয়নের বালিচাঁদ গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় ভুক্তভোগী আব্দুর রহিম বাদী হয়ে নিয়ামতপুর থানা একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, বালিচাঁদ গ্রামের মৃত সুলতান মন্ডলের ছেলে হাবিবুর রহমান, নূর হোসেন এবং হাবিবুরের ছেলে আরিফুল ইসলাম, নূর হোসেনের ছেলে রুবেল হোসেন ও শামসুর রহমানের ছেলে দেলোয়ার হোসেন ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে গভীর নলকূপের আন্ডারগ্রাউন্ড ড্রেনের গ্যাস পাইপ বন্ধ করে দেন। এতে করে ওই গভীর নলকূপের পানি সেচ কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে। ভুক্তভোগী আব্দুর রহিম বলেন, থানায় অভিযোগ করে এক মাস পেরিয়ে গেলেও কোন সুষ্ঠু পদক্ষেপ গ্রহণ করেনি থানা পুলিশ। তিনি আরো বলেন, ১৬সাল থেকে শান্তিপূর্ণভাবে গভীর নলকূপটি পরিচালনা করে আসছি। প্রায় ৮০ বিঘা জমিতে সেচ দিয়ে কৃষকের ফসল ফলাতে সহায়তা করে আসছি। কিন্তু একটি কুচক্রী প্রভাবশালী মহল উদ্দেশ্য প্রণীতভাবে আমি সহ কৃষকের ক্ষতির সাধনে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। সরেজমিনে ঘটনাস্থলে গেলে ভুক্তভোগী কৃষকরা জানান, ইতিপূর্বেও পানির সমস্যায় আমন ধানে ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে আমাদের। বর্তমানে পানি একেবারেই বন্ধ থাকায় বোরো ধান চাষ নিয়ে আমরা চরম হতাশায় রয়েছি। আমারা খুব দ্রুত সময়ে মধ্যে সুষ্ঠু সমাধান চাই। এ ব্যাপারে নিয়ামতপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি মাইদুর রহমানের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি দুই পক্ষকে ডাকা হয়েছে একটি শান্তিপূর্ণ সমাধানের জন্য।

Facebook Comments Box
এই জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২৩ গোদাগাড়ী নিউজ 24
Theme Customized By Shakil IT Park